নারী নিরাপত্তায় তলানিতে বাংলাদেশ

808
শেয়ার করতে ক্লিক করুন

বিশ্বের ১৭০টি দেশের মধ্যে নারী, শান্তি ও নিরাপত্তা সূচক ২০২১-এ বাংলাদেশের অবস্থান ১৫২তম।

সূচকে নারী নিরাপত্তায় দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে ভারত, নেপাল, শ্রীলঙ্কা ও ভুটান বাংলাদেশের চেয়ে এগিয়ে এবং পাকিস্তান ও আফগানিস্তান পিছিয়ে রয়েছে।

নারীদের নিরাপত্তা সংক্রান্ত এই প্রতিবেদনটি প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক সংগঠন, জর্জটাউন ইন্সটিটিউট ফর উইমেন, পিস অ্যান্ড সিকিউরিটি (জিআইডব্লিউপিএস)।

সূচক অনুযায়ী, নারীর কর্মসংস্থানের ক্ষেত্রে ১০০-এর মধ্যে বাংলাদেশের স্কোর ৩৫ দশমিক ২; স্কুলে পড়ার ক্ষেত্রে স্কোর ১৫-এর মধ্যে ৬ এবং আর্থিক ক্ষেত্রে নারীর অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে ১০০-এর মধ্যে ৩৫ দশমিক ৮ স্কোর করেছে বাংলাদেশ।

সূচকের অন্যান্য মানদণ্ডগুলোর মধ্যে ছিল, নারীদের মোবাইল ফোন ব্যবহারের শতকরা হার, জাতীয় সংসদে নারীদের অন্তর্ভুক্তি, বৈষম্যমূলক প্রথা, পুরুষ শিশুদের প্রতি পক্ষপাত, সম্প্রদায়ের নিরাপত্তার বিষয়ে উপলব্ধি, বর্তমান সঙ্গীর সহিংসতাসহ অন্যান্য সংগঠিত সহিংসতা।

এ ছাড়া, সূচকে দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে ভারত, নেপাল, শ্রীলঙ্কা ও ভুটান বাংলাদেশের উপরে অবস্থান করছে। তাদের অবস্থান যথাক্রমে ভারত ১৪৮তম, নেপাল ৯৫তম, শ্রীলঙ্কা ১০৫তম ও ভুটান ১২৯তম।

তবে, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান এই অঞ্চলের সূচকে সবচেয়ে খারাপ অবস্থানে আছে। দেশ দুটির অবস্থান যথাক্রমে ১৬৭তম ও ১৭০তম। সূচকের সবচেয়ে নিচে আছে আফগানিস্তান।

সূচকের নিচে থাকা ৫টি দেশ হলো, আফগানিস্তান ১৭০তম, সিরিয়া ১৬৯তম, ইয়েমেন ১৬৮তম, পাকিস্তান ১৬৭তম ও ইরাক ১৬৬তম। অন্যদিকে সূচকে প্রথম থেকে পঞ্চম অবস্থানে থাকা দেশগুলো হলো- নরওয়ে, ফিনল্যান্ড, আইসল্যান্ড, ডেনমার্ক ও লুক্সেমবার্গ।

শেয়ার করতে ক্লিক করুন