নির্বাচনে অংশ নেয়া ছাড়া বিএনপির কোনও বিকল্প নেই: আওয়ামী লীগ

793
শেয়ার করতে ক্লিক করুন

রাজনীতির মাঠে থাকতে হলে নির্বাচনে অংশ নেয়া ছাড়া বিএনপির কাছে কোনও বিকল্প নেই বলে মনে করছে আওয়ামী লীগ।
সংসদে প্রধান বিরোধী দল না হলেও, আলোচনায় ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের পরেই বিএনপির অবস্থান। এবার নির্বাচন কমিশন গঠন প্রক্রিয়ায় অংশও নেয়নি দলটি। তাদের দাবি সুষ্ঠু নির্বাচন করতে হলে নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার গঠন করতে হবে।

আওয়ামী লীগের নেতারা মনে করেন, দলের ভেতরে মূল নেতৃত্বে আসার কেউ না থাকায়, দুর্বলতা ঢাকতেই দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ নিয়ে টালবাহানা করছে দলটি। বিএনপি নিজেদের নেতৃত্ব সংকটকে আড়াল করতেই নির্বাচনে না যাওয়ার অজুহাত খুঁজছে।

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, বেগম খালেদা জিয়া একজন দণ্ডিত আসামি। নির্বাচন বিধি অনুসারে তিনি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে পারবে না। তারেক রহমান দেশ থেকে পলাতক অবস্থায় রয়েছেন। সেও দণ্ডিত আসামি। তার বিরুদ্ধে অনেক মামলা আছে। বিএনপির এখন অবস্থা হচ্ছে মাউত ছাড়া হাতির মত।

নির্বাচনে অংশ গ্রহন ছাড়া বিএনপির বিকল্প নেই বলে মত আওয়ামী লীগ নেতাদের। দলটির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আব্দুর রহমান বলেন, যেহেতু খালেদা জিয়া এবং তারেক রহমান নির্বাচন করতে পারবে না, সেহেতু এই দলকে নির্বাচনমুখী করার প্রচেষ্টা সেটি আমরা বিবেচনা করতে পারি না। সুতরাং তারা নৈরাজ্য সৃষ্টি করে নির্বাচন ভণ্ডুল করবে এবং অন্যপথে ক্ষমতায় আসার চেষ্টা করবে।

জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, বিএনপি নামক দলটি রাজনীতিতে খেই হারিয়ে ফেলেছে। নির্বাচন জনগণএর ভোটের উপর নির্ভর করে। বিএনপি নির্বাচনকে ভয় পায় কারণ এই দেশের মানুষ ভুলে নাই কিভাবে তারা দেশকে হত্যার লিলাভূমিতে পরিণত করেছে।

বিএনপিকে সুস্থ ধারার রাজনীতি করারও আহ্বান তাদের।

শেয়ার করতে ক্লিক করুন