একই রাতে মেসি-রোনালদোর বিশ্বরেকর্ড

298
শেয়ার করতে ক্লিক করুন

কাতার বিশ্বাকপের পর্দা নেমেছে তিন মাসেরও বেশি সময় হয়েছে। বিশ্বকাপের সুখস্মৃতি-দুঃস্মৃতি নিয়ে আবারও প্রতিযোগি ফুটবলে ফিরেছে দলগুলো। যেখানে ইউরো বাছাইপর্বের মিশন শুরু করেছে ইউরোপীয় দলগুলো। আর বিশ্বকাপ পরবর্তী আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ দিয়ে আবারও মাঠের লড়াইয়ে ফিরেছে লাতিন আমেরিকার দলগুলো।

ইউরো বাছাইয়ের ম্যাচে লিচনস্টেইনের মুখোমুখি হয় পর্তুগাল। আর প্রীতি ম্যাচ পানামার মুখোমুখি হয় আর্জেন্টিনা। পর্তুগাল জিতে ৪-০ গোলে এবং আর্জেন্টিনা জিতে ২-০ গোলে। বৃহস্পতিবারের (২৩ মার্চ) এই ম্যাচগুলোতে নিজেদের নামের পাশে একটি করে রেকর্ড যুক্ত করেছেন লিওনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো।

সময়ের সেরা দুই তারকা এদিন গোলও করেছেন। পর্তুগালের হয়ে জোড়া গোল করেন রোনালদো। আর মেসির পা থেকে আসে একটি গোল।

লিচনস্টেইনের বিপক্ষে ম্যাচের ৫১ মিনিটে পেনাল্টি থেকে এবং ৬৩ মিনিটে ফ্রি কিক থেকে দুর্দান্ত গোল করেন রোনালদো। এতে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ড আরও মজবুত করলেন সিআরসেভেন। রোনালদোর গোলের সংখ্যা বর্তমানে ৮৩০। এর মধ্যে পর্তুগালের হয়ে ১২০টি গোল করেন তিনি।

কাতার বিশ্বকাপেই তিনি পর্তুগালের হয়ে খেলেছেন ১৯৬তম ম্যাচ। বৃহস্পতিবার রাতে তার নামের পাশে হয়ে গেছে ১৯৭টি ম্যাচ।

আন্তর্জাতিক ফুটবলে ১৯৬ ম্যাচ খেলেছেন কেবল কুয়েতের বদর আল মুতাওয়া। যিনি তার সর্বশেষ ম্যাচ খেলে ফেলেছেন ২০২২ সালের ১৪ জুন। ২০০৩ সালের ২০ আগস্ট আন্তর্জাতিক ফুটবলে অভিষেক হয় রোনালদোর।

রোনালদোর এই রেকর্ডের রাতে ইতিহাস গড়েন লিওনেল মেসিও। পানামার বিপক্ষে ম্যাচে ৮৯ মিনিটে ফ্রিক কিক থেকে সরাসরি গোল করেন মেসি। যা আর্জেন্টিনার জার্সিতে মেসির ৯৯তম গোল। সে সঙ্গে ক্লাব ও জাতীয় দল মিলিয়ে মেসির গোলের সংখ্যা এখন ৮০০। মেসি বার্সেলোনার জার্সিতে ৬৭২ গোল আর পিএসজির হয়ে ২৯ গোল করেন।

শেয়ার করতে ক্লিক করুন